সাগরে ডাকাতি, ৪ ট্রলারসহ ১৬ জেলে অপহরণ

সাগরে ডাকাতি, ৪ ট্রলারসহ ১৬ জেলে অপহরণ

0

নিজস্ব প্রতিবেদক, নগরকন্ঠ.কম ১৮ মার্চ : বঙ্গোপসাগরে জলদস্যু বাহিনী ৪ ট্রলারসহ ১৬ জেলেকে অপহরণ করে নিয়ে গেছে। শনিবার সকাল ১০টার দিকে বঙ্গোপসাগরে জাহাজের খারি নামক স্থানে এ ডাকাতির ঘটনা ঘটে।

রোববার সকাল ৮টার দিকে বরগুনা জেলা মৎস্যজীবী ট্রলার মালিক সমিতির সভাপতি গোলাম মোস্তফা চৌধুরীর কাছে কক্সবাজারে ফিরে আসা জেলেরা এ অভিযোগ করেন। তবে জলদস্যু বাহিনীর নাম জানা যায়নি।

জলদস্যুরা জেলেদের মারধর করে বরগুনা পাথরঘাটার এফবি মা, ভোলা জেলার এফবি হিমা, চট্টগ্রাম জেলার বাশঁখালীর এফবি কহিনুর ও এফবি জান্নতুল ফেরদৌস ট্রলারসহ ১৬ জেলেকে মুক্তিপণের জন্য জিম্মি করে নিয়ে গেছে।

অপহৃত জেলেরা হলেন বরগুনা জেলার পাথরঘাটার এফবি মা ট্রলারের আবদুর রহিম মাঝি, ফারুক, বেল্লাল ও কুডি মিরা এবং ভোলা জেলার দৌলতখান উপজেলার এফবি হিমা ট্রলারের মো. জাকের মাঝি। অপর ১১ জেলের নাম জানা যায়নি।

এফবি মা ট্রলারের ফিরে আসা জেলে জাহিদ, কালাম সিকদার, রাজু, হাসান, কামালের বরাত দিয়ে বরগুনা জেলার মৎস্যজীবী ট্রলার মালিক সমিতির সভাপতি গোলাম মোস্তফা চৌধুরী বলেন, গত শনিবার সকালে বঙ্গোপসাগরের জাহাজ খারী এলাকায় জেলেরা জাল ফেলে অপেক্ষা করছিল। সকাল ১০টার দিকে হঠাৎ ২০-২৫ জনের একটি বাহিনী পাইপগান, কাটা রাইফেল নিয়ে জেলে নৌকায় হামলা করে।

পরে বাগেরহাট জেলার মোড়লগঞ্জের মনিরের মালিকানাধীন এফবি মনির ট্রলারে রাত ১২টার দিকে জেলেদের উঠিয়ে দিয়ে মুক্তিপণের দাবিতে মাঝি ও ৪ ট্রলারসহ ১৬ জেলেকে অপহরণ করে নিয়ে যায়।

ফিরে আসা জেলেরা রোববার সকাল ৭টার দিকে কক্সবাজারে পৌঁছায়। তারা বর্তমানে কক্সবাজারের ফিসারী ঘাটের মাছুম অড়ৎদারের হেফাজতে আছেন।

রোববার সকালে ট্রলার মালিকদের কাছে ফোনে ট্রলার প্রতি ৪ লাখ করে মুক্তিপণ দাবি করে জলদস্যু বাহিনী। তবে বাহিনীর নাম জানায়নি তারা।

র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটেলিয়ন (র‌্যাব-৭) এর কোম্পানি কমান্ডার মেজর মেহেদী ফোনে বলেন, খবর শোনার সঙ্গে সঙ্গে আমাদের দল উদ্ধার অভিযান শুরু করেছে। অপহৃত জেলে ও ট্রলার উদ্ধারের চেষ্টা অব্যাহত আছে।

নগরকন্ঠ.কম/এআর

কোন কমেন্ট নেই

উত্তর দিন