শনিবার, ১৮ মে ২০২৪, ০৯:০২ পূর্বাহ্ন

বাংলাদেশের বিপক্ষে টেস্ট খেলতে টালবাহানা অস্ট্রেলিয়ার

টেস্ট স্ট্যাটাস পাওয়ার পর মাত্র একবারই অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে টেস্ট খেলার সুযোগ হয়েছে বাংলাদেশের। সাকিব-মুশফিকদের সোনালি প্রজন্মের সৌভাগ্যই হয়নি লাল বলে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে খেলার।

আইসিসির ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা (এফটিপি) অনুযায়ী, ২০২৭ সালের মার্চে অস্ট্রেলিয়ায় বাংলাদেশের দুই টেস্টের সিরিজ খেলার কথা। তবে সেই সিরিজের সূচি নিয়েও টালবাহানা শুরু করেছে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া।

২০০৩ সালে প্রথম ও এখন পর্যন্ত শেষবারের মতো অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে টেস্ট সিরিজ খেলেছিল বাংলাদেশ। ২০০৩ সালের জুলাইয়ে ডারউইন ও কেয়ার্নসে টেস্ট দুটি হয়েছিল। যে সময়টা ছিল অস্ট্রেলীয় ক্রিকেট গ্রীষ্মের বাইরে।

এফটিপি অনুযায়ী, ২৪ বছর পর অস্ট্রেলিয়ায় দ্বিতীয় টেস্ট সফর করার কথা বাংলাদেশের। সময়সূচি অনুযায়ী, এই প্রথমবার অস্ট্রেলীয় ক্রিকেট গ্রীষ্মে সিরিজ খেলার সুযোগ পেত বাংলাদেশ। কিন্তু এই সিরিজটি ২০২৭ এর মার্চে না খেলে এগিয়ে আনতে চায় ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া। ২০২৬ সালর আগস্ট-সেপ্টেম্বরে সিরিজটা খেলতে চায়, যা তাদের গ্রীষ্মকালীন সূচির বাইরে। অর্থ্যাৎ প্রথমবারের মতো অস্ট্রেলীয় গ্রীষ্মে যে সিরিজ খেলার সুযোগ হয়েছিল তা এখন শঙ্কার মুখে।

বাংলাদেশের বিপক্ষে সিরিজের আগে অস্ট্রেলিয়া সফরে যাবে নিউজিল্যান্ড ও ভারত দল। নিউজিল্যান্ড সিরিজে ৩ টেস্টের বদলে ৪ টেস্ট খেলতে চায় অজিরা। আবার এই গ্রীষ্মেই ইংল্যান্ডের বিপক্ষে অস্ট্রেলিয়ার প্রথম টেস্ট খেলার ১৫০ বছর পূর্তি হচ্ছে। সেটি ধুমধাম করে উদযাপনের পরিকল্পনাও আছে তাদের। সব মিলিয়ে বাংলাদেশের সঙ্গে সিরিজ খেলাটা বাড়তি চাপই মনে হচ্ছে তাদের কাছে। তাই সিরিজটি এগিয় আনতে চাইছে তারা। সেটি হলে অস্ট্রেলীয় ক্রিকেট গ্রীষ্মে বাংলাদেশের টেস্ট সিরিজ খেলার অপেক্ষা আরও দীর্ঘতর হবে। ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া যে সিরিজ এগিয়ে আনার প্রস্তাব দিয়েছে এমন খবরের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন বিসিবির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা নিজাম উদ্দিন চৌধুরী সুজন। গণমাধ্যমকে তিনি জানান, অজিরা প্রস্তাব দিলেও এখনও চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হয়নি। বিষয়টি নিয়ে এখনও আলোচনা চলছে।

এর আগে ২০১৮ সালে ২ টেস্ট ও ৩ ওয়ানডে খেলতে অস্ট্রেলিয়ায় যাওয়ার কথা ছিল বাংলাদেশের। কিন্তু সম্প্রচারকদের অনাগ্রহের কথা বলে সে সিরিজ বাতিল করেছিল অস্ট্রেলিয়া। শুধু আতিথেয়তাই নয়, বাংলাদেশে আতিথেয়তা নিতেও অজিদের অনীহা। ২০১৫ সালে বাংলাদেশে সিরিজ খেলার কথা থাকলেও নিরাপত্তা শঙ্কার কথা বলে আসেনি অস্ট্রেলিয়া। পড়ে অবশ্য ২০১৭ সালে সিরিজটি মাঠে গড়ায়। ২০২০ সালে করোনার কারণেও বাংলাদেশে আসেনি তারা।

এ পর্যন্ত বাংলাদেশের বিপক্ষে সাকুল্যে ৬টি টেস্ট খেলেছে অজিরা। যার চারটিই হয়েছে বাংলাদেশের মাটিতে। সবশেষ ২০১৭ সালে দুই দল টেস্ট সিরিজ খেলেছে।

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2017 Nagarkantha.com