বিএনপির এক দফা রফা হয়ে গেছে : নাসিম

বিএনপির এক দফা রফা হয়ে গেছে : নাসিম

0

নিজস্ব প্রতিবেদক, নগরকন্ঠ.কম : খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে বিএনপির এক দফা আন্দোলনের হুশিয়ারি প্রসঙ্গে আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও কেন্দ্রীয় ১৪ দলের মুখপাত্র মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন, বিএনপির এক দফা রফা হয়ে গেছে। তাদের ফাঁকা আওয়াজ। অবশ্য কোনো দফা কিংবা নৈরাজ্য সৃষ্টি করে লাভ হবে না। তাদের নেত্রীকে মুক্ত করতে হলে আইনের পথে থাকতে হবে। কারণ দেশের জনগণ নৈরাজ্য সমর্থন করে না।

রোববার বিকালে রাজধানীর ঐতিহাসিক সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে আওয়ামী লীগের ২১তম জাতীয় সম্মেলন সফল করার লক্ষ্যে গঠিত অভ্যর্থনা উপ-কমিটির সঙ্গে মঞ্চ ও সাজসজ্জা উপকমিটি, শৃঙ্খলা উপ-কমিটি ও খাদ্য উপ-কমিটির বৈঠকে সভাপতির বক্তৃতায় তিনি এ সব কথা বলেন।

নাসিম বলেন, ভয়মুক্ত বাংলাদেশ, ভয়মুক্ত বাঙালি, ভয়মুক্ত শেখ হাসিনা। কোনো চক্রান্ত শেখ হাসিনার অগ্রযাত্রাকে রোধ করতে পারবে না। একই সঙ্গে কোনো অপশক্তি আওয়ামী লীগের অগ্রযাত্রাকে রোধ করতে পারেনি, ভবিষ্যতেও পারবে না।

বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ উন্নয়নের মহাসড়কে দ্রুত এগিয়ে যাচ্ছে মন্তব্য করে আওয়ামী লীগের এই নেতা বলেন, একটি অসাম্প্রদায়িক সমৃদ্ধ দেশ গড়ার লক্ষ্যে এই যাত্রা চলতেই থাকবে। তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ গণতন্ত্র প্রশ্নে আপোষহীন। যে কোনো সাম্প্রদায়িকতার বিরুদ্ধে লড়াইয়ে দৃঢ় প্রতিজ্ঞ। একটি সুখী-সমৃদ্ধ দেশ গড়তে আমাদের লড়াই অব্যাহত থাকবে।

নাসিম বলেন, উপ-মহাদেশের প্রচীনতম রাজনৈতিক দল আওয়ামী লীগের জাতীয় সম্মেলন ঘিরে সারা দেশে উৎসবমুখর পরিবেশ বিরাজ করছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে গণতন্ত্র, স্বনির্ভর অর্থনীতি এবং সন্ত্রাস-জঙ্গিমুক্ত দেশ গড়ার লক্ষ্য নিয়ে আগামী ২০ ডিসেম্বর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে লক্ষাধিক বঙ্গবন্ধুর আদর্শের সৈনিকের উপস্থিতির মধ্য দিয়ে নতুন করে শপথ গ্রহণ করা হবে।

তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ চিরদিন গণতন্ত্রে বিশ্বাস করে। দলেও গণতান্ত্রিক ধারা অব্যাহত থাকায় সময়ানুযায়ী সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

মোহাম্মদ নাসিম বলেন, আসন্ন কাউন্সিলে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে একটি গতিশীল শক্তিশালী আওয়ামী লীগ গড়ে তোলা হবে। যেখানে নবীন-প্রবীণের সমন্বয় ঘটবে। সব কাউন্সিলর, ডেলিগেট ও অতিথিদের যথাযোগ্য মর্যাদায় ২০ ডিসেম্বর বরণ করে নেয়া হবে। অভ্যর্থনা উপ-কমিটির আহ্বায়ক হিসেবে তিনি কাউন্সিলর, ডেলিগেট ও আমন্ত্রিত অতিথিদের যথাসময়ে উপস্থিত হয়ে সম্মেলন বর্ণাঢ্য করার আমন্ত্রণ জানান।

বৈঠকে অন্যদের মধ্যে আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক এবং মঞ্চ ও সাজসজ্জা উপ-কমিটির আহ্বায়ক জাহাঙ্গীর কবির নানক, কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য ও খাদ্য উপ-কমিটির আহ্বায়ক মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া বীরবিক্রম, সাংগঠনিক সম্পাদক এবং স্বেচ্ছাসেবক ও শৃঙ্খলা উপ-কমিটির সদস্য সচিব আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য ও সাবেক খাদ্যমন্ত্রী কামরুল ইসলাম, উপ-দফতর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়া, কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সদস্য মির্জা আজম, তথ্য প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসান, স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদের সভাপতি অধ্যাপক ডা. এম ইকবাল আর্সলান, ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ বজলুর রহমান, দক্ষিণের সভাপতি আবু আহাম্মদ মন্নাফি, সাধারণ সম্পাদক হুমায়ুন কবির প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। বৈঠক শেষে মোহাম্মদ নাসিমের নেতৃত্বে নেতৃবৃন্দ সম্মেলনস্থল ঘুরে ঘুরে দেখেন।

নগরকন্ঠ.কম/এআর

কোন কমেন্ট নেই

উত্তর দিন