সিরাজগঞ্জে আ.লীগের দু’পক্ষের সংঘর্ষে আহত ২০

সিরাজগঞ্জে আ.লীগের দু’পক্ষের সংঘর্ষে আহত ২০

0

নিজস্ব প্রতিবেদক, নগরকন্ঠ.কম : সিরাজগঞ্জের বেলকুচি উপজেলায় আওয়ামীলীগের বর্ধিত সভাকে কেন্দ্র করে দুইপক্ষের নেতাকর্মীদের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া হয়েছে। এতে অন্তত ২০ জন আহত হয়েছেন।

শনিবার (২১ নভেম্বর) দুপুরে উপজেলা আওয়ামীলীগের কার্যালয়ে বর্ধিত সভা শুরু হয়। অনুষ্ঠানে বিভিন্ন ওয়ার্ড থেকে নেতাকর্মীরা মিছিল নিয়ে জড়ো হতে থাকে। অনুষ্ঠানের শুরুর দিকে বেলকুচির পৌর মেয়র আশানুর বিশ্বাসের নেতৃত্বে মিছিল সভার দিকে যাচ্ছিল। তখন সম্ভব্য মেয়র প্রার্থী সাজ্জাদুল হক রেজার সমর্থকরা রাস্তার ওপরে দাঁড়িয়ে ছিল। আশানুর বিশ্বাসের সমর্থকদের সঙ্গে সাজ্জাদুল হক রেজার সমর্থকদের কথা কাটাকাটি হয়। একপর্যায়ে তারা ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ায় জড়িয়ে পড়ে এবং ইটপাটকেল নিক্ষেপ শুরু হয়।

বর্তমান মেয়র আশানুর বিশ্বাস বলেন, ‘আমি নেতাকর্মীদের নিয়ে বর্ধিত সভায় যোগ দিতে যাচ্ছিলাম। কার্যালয়ের কাছাকাছি আসলে সাজ্জাদুল হক রেজার গ্রুপের লোকজন ঢিল ছুড়তে থাকে ও অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করতে থাকে। একপর্যায় তারা হামলা চালিয়ে আমার ৮/১০ জন কর্মীকে আহত করেন।’

সাজ্জাদুল হক রেজা বলেন, ‘আমি আসন্ন বেলকুচি পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র প্রার্থী। এর জের ধরে মেয়র আশানুর বিশ্বাসের লোকজন আমার সর্মথকদের ওপর হামলা করেছেন। এতে আমার ১০/১২ জন কর্মী আহত হয়েছেন।’

বেলকুচি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) গোলাম মোস্তফা বলেন, দুইপক্ষের মাঝে উত্তেজনার সৃষ্টি হলে ৬ রাউন্ড টিয়ারসেল নিক্ষেপ করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনা হয়েছে।

নগরকন্ঠ.কম/এআর

কোন কমেন্ট নেই

উত্তর দিন