রংপুর পূজা উদযাপন পরিষদের ২ কমিটির মধ্যে হাতাহাতি

রংপুর পূজা উদযাপন পরিষদের ২ কমিটির মধ্যে হাতাহাতি

0

নিজস্ব প্রতিবেদক, নগরকন্ঠ.কম : একই স্থানে অনুষ্ঠান করা নিয়ে রংপুর মহানগর পূজা উদযাপন পরিষদের দুই গ্রুপের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দিয়েছে। পরে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে। তবে এঘটনার জন্য পরস্পর বিরোধী বক্তব্য পাওয়া গেছে। তারা দুটি কমিটিকেই বৈধ দাবি করেন।

প্রত্যক্ষদর্শী ও পূজা উদযাপন পরিষদের নেতৃবৃন্দ জানান, আজ শনিবার সকালে নগরীর ক্ষত্রিয় সমিতি মাঠে জাতীয় পর্যায়ে অংশগ্রহণের জন্য মহানগর পূজা উদযাপন পরিষদের আহবায়ক কমিটি উলুধনি ও শঙ্খধনি প্রতিযোগিতার বাছাই পর্বের আয়োজন করে। অনুষ্ঠান চলাকালীন মহানগর কমিটির সাবেক সাধারণ সম্পাদক ধনজিৎ ঘোষ তাপসের নেতৃত্বে বেশকিছু লোকজন এসে অনুষ্ঠানে বাধা প্রদান করে। এনিয়ে দুই গ্রুপের মধ্যে হাতাহাতির ঘটনাও ঘটে। পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে। এসময় দুই গ্রুপই নিজেদের বৈধ বলে দাবি করেন।

মহানগর কমিটির সাবেক সাধারণ সম্পাদক ধনজিৎ ঘোষ তাপস বলেন, আমরা বৈধ কমিটিতে রয়েছি। আমাদের না জানিয়ে অনুষ্ঠান করছিল। এর প্রতিবাদ করলে ওই পক্ষ আমাদের ওপর চড়াও হয়। এতে আমাদের কয়েকজন আহত হয়েছে।

এদিকে অপর কমিটির আহবায়ক এ্যাডভোকেট প্রশান্ত কুমার রায় বলেন, মহানগর কমিটির মেয়াদ শেষ হওয়ায় কেন্দ্রীয় কমিটি আহবায়ক কমিটি গঠন করে দেয়। কেন্দ্রীয় নির্দেশনা অনুয়ায়ী আমরা অনুষ্ঠানের আয়োজন করি। কিন্তু তাপসের লোকজন এসে আমাদের অনুষ্ঠানে বাধা প্রদান করে। পুলিশ এসে তাদের নিবৃত করলে আমরা অনুষ্ঠান শেষ করি।

উল্লেখ্য, অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি রংপুর রেঞ্জের ডিআইজি দেবদাস ভট্টাচার্য্যসহ জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দের অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকার কথা ছিল। কিন্তু দুই পক্ষের হাতাহাতির কারণে কোন অতিথি অনুষ্ঠানে আসেননি।

নগরকন্ঠ.কম/এআর

কোন কমেন্ট নেই

উত্তর দিন