ইবি ছাত্রী তিন্নির মৃত্যু : প্রধান আসামি গ্রেপ্তার

ইবি ছাত্রী তিন্নির মৃত্যু : প্রধান আসামি গ্রেপ্তার

0

নিজস্ব প্রতিবেদক, নগরকন্ঠ.কম : ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইবি) শিক্ষার্থী উলফাত আরা তিন্নির মৃত্যুর ঘটনায় তাঁর মায়ের করা মামলায় প্রধান আসামি জামিরুলকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। মামরার তদন্ত কর্মকর্তা পরিদর্শক (তদন্ত) মহসিন হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, জামিরুলকে মাগুরা শহরের ভায়নার মোড় থেকে ভোরে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

জামিরুল তিন্নির বোনের সাবেক স্বামী। পরিবারের অভিযোগ গত বৃহস্পতিবার জামিরুল ও তার সহযোগীরা জোর করে বাড়িতে প্রবেশ করে ভাঙচুর চালিয়ে তিন্নির শোবার ঘরে ঢুকে তাকে নির্যাতন ও শ্লীলতাহানি করেন। এরপরই আত্মহত্যার পথ বেছে নেন তিন্নি।

এ ঘটনায় গত শুক্রবার তিন্নির মা হালিমা বেগম বাদী হয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে জামিরুলকে প্রধান আসামি করে আটজনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন। ঘটনায় যুক্ত থাকার অভিযোগে এর আগে আর চারজনকে আটক করেছে পুলিশ।

শৈলকুপা সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আরিফুল ইসলাম জানান, তিন্নির ওপর নির্যাতন ও পরে তার রুম থেকে ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধারের ঘটনায় দায়ের হওয়া মামলার প্রধান আসামিকে আটক করা হয়েছে। সে একটু পরপরই স্থান পরিবর্তন করছিল। মাগুরার ভায়না মোড় দিয়ে কোথাও যাওয়ার জন্য দাঁড়িয়ে ছিল। এ সময় শৈলকুপা থানার পুলিশের একটি দল তাকে গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হয়।

এদিকে তিন্নির ময়নাতদন্তের প্রতিবেদনে ধর্ষণ ও নির্যাতনের আলামত পাওয়া যায়নি বলে জানিয়েছেন চিকিৎসক। প্রতিবেদনে এটিকে ঝুলন্ত অবস্থায় আত্মহত্যা বলা হয়। যদিও এই প্রতিবেদন বিশ্বাস করতে পারছেন না বলে জানিয়েছেন স্বজনরা।

নিহত তিন্নি শেখপাড়া গ্রামের মৃত মুক্তিযোদ্ধা ইউসুফ আলীর মেয়ে ও ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের হিসাববিজ্ঞান ও তথ্যপদ্ধতি বিভাগের ২০১২-১৩ শিক্ষাবর্ষের ছাত্রী।

নগরকন্ঠ.কম/এআর

অনুরূপ খবর

কোন কমেন্ট নেই

উত্তর দিন